• মঙ্গল. এপ্রি ২০, ২০২১

অনুসন্ধানবার্তা

অজানাকে জানতে চোখ রাখুন

চাকরির প্রলোভন দেখিয়ে কিশোরীকে পতিতালয়ে বিক্রি ! গ্রেফতার ১

Byঅনুসন্ধান বার্তা

এপ্রি ৮, ২০২১
0 0
Read Time:3 Minute, 3 Second

অনুসন্ধানবার্তা ডেস্ক :

শেরপুর জেলার শ্রীবরদীতে চাকরির প্রলোভন দেখিয়ে এক কিশোরীকে পতিতালয়ে বিক্রির অভিযোগ উঠেছে। ঘটনাটি ঘটেছে উপজেলার কাকিলাকুড়া ইউনিয়নের গেরামারা চৌরাস্তা বাজার এলাকায়।

এদিকে এ ঘটনার সঙ্গে জড়িত থাকার অভিযোগে রঞ্জু মিয়া (২৬) নামে এক যুবককে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। গ্রেফতারকৃত রঞ্জু মিয়া চেঙ্গুরতাইর গ্রামের আব্দুল বারেক ওরফে দুধা মিয়ার ছেলে।

এ ঘটনায় ওই কিশোরীর মা বাদী হয়ে রঞ্জু মিয়াসহ তিনজন এজাহারনামীয় এবং ২/৩ জনকে অজ্ঞাতনামা আসামি করে শ্রীবরদী থানায় একটি মামলা দায়ের করেছেন।

পুলিশ ও এলাকাবাসী সূত্রে জানা গেছে, প্রায় দুই বছর আগে কিশোরীর পিতা মারা যান। সংসারে অভাব অনটনের কারণে কিশোরীর মা চায়ের দোকান করে জীবিকা নির্বাহ করে আসছেন। গত ২৮ মার্চ মায়ের সঙ্গে কিশোরীর কথাকাটাকাটি হয়। কিশোরীকে স্বাধীন, রঞ্জু মিয়া ও মুরাদুজ্জামান ওরফে ফুডা মিয়া চাকরির কথা বলে সেদিন বাড়ি থেকে নিয়ে যায়।

পরে ময়মনসিংহ নিয়ে অজ্ঞাতনামা বাড়িতে রেখে চলে আসে। ওই বাড়িতে থাকা একজন মহিলা কিশোরীকে দেহ ব্যবসা করার জন্য চাপ ও প্রলোভন দেখায়। কিশোরী কান্নাকাটি করায় এবং দেহ ব্যবসায় রাজি না হওয়ায় ৩১ মার্চ ওই মহিলা ও কয়েকজন কিশোরীকে শেরপুরগামী সোনার বাংলা বাসে তুলে দেয়। কিশোরী শেরপুর এসে সিএনজি করে শ্রীবরদী এবং পরে অটোরিকশা করে বাড়িতে আসে।

পরে বিষয়টি ধামাচাপা দিতে স্বাধীনের পিতা মুছাসহ এলাকার প্রভাবশালী কয়েকজন কিশোরী ও তার মাকে চাপ সৃষ্টি করে।

এক পর্যায়ের ৭ এপ্রিল রাতে পুলিশ সংবাদ পেয়ে রঞ্জু মিয়াকে গ্রেফতার করে।

এ ব্যাপারে শ্রীবরদী থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মোখলেছুর রহমান জানান, এ ঘটনায় কিশোরীর মা বাদী হয়ে মানব পাচার প্রতিরোধ ও দমন আইনের ৮(২)/১১ ধারায় মামলা দায়ের করেছেন। ঘটনার সঙ্গে জড়িত থাকার অভিযোগে রঞ্জু মিয়াকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। অন্যদের গ্রেপ্তারের চেষ্টা অব্যাহত আছে।

Happy
Happy
0 %
Sad
Sad
0 %
Excited
Excited
0 %
Sleepy
Sleepy
0 %
Angry
Angry
0 %
Surprise
Surprise
0 %
error: Content is protected !!