• রবি. ফেব্রু ২৮, ২০২১

অনুসন্ধানবার্তা

অজানাকে জানতে চোখ রাখুন

বগুড়ার ধুনটে গৃহবধুকে বিষপানে হত্যার অভিযোগ স্বামী ও সতীনের বিরুদ্ধে

Byঅনুসন্ধান বার্তা

ফেব্রু ৮, ২০২১
Murder Anar Koli
0 0
Read Time:3 Minute, 6 Second

স্টাফ রিপোর্টার, অনুসন্ধানবার্তা :

বগুড়ার ধুনটে যৌতুকের টাকা না দেয়ায় আনার কলি (৩২) নামে এক গৃহবধূকে হত্যার অভিযোগ উঠেছে স্বামী ও সতীনের বিরুদ্ধে। সোমবার (৮ ফেব্রুয়ারী) দুপুরে স্বামীর বাড়ি থেকে আনার কলির মৃতদেহ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে প্রেরন করেছে ধুনট থানা পুলিশ।

নিহত আনার কলি উপজেলার কালেরপাড়া ইউনিয়নের ঈশ্বরঘাট গ্রামের মোজাম্মেল হকের স্ত্রী।

থানা পুলিশ ও স্থানীয়সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার ঈশ্বরঘাট গ্রামের মৃত আমজাদ হোসেনের মেয়ে আনার কলি গত দুই বছর আগে এক সন্তান ও স্বামীকে রেখে প্রেম করে একই গ্রামের মৃত আছমত আলীর ছেলে মোজাম্মেল হককে বিয়ে করেন। মোজাম্মেল হকের ঘরেও স্ত্রী ও সন্তান রয়েছে।

আনার কলির ভাই আব্দুস ছোবাহান জানান, বিয়ের পর থেকেই আনার কলিকে যৌতুকের জন্য বাবার বাড়ি থেকে জমি বিক্রি করে টাকা এনে দিতে নির্যাতন চালিয়ে আসছিল স্বামী মোজাম্মেল হক ও সতীন আম্বিয়া খাতুন। একপর্যায়ে তারা গত শুক্রবার বিকেলে পান্তা ভাতের সঙ্গে বিষ মিশিয়ে খাওয়ালে আনার কলি অসুস্থ হয়ে পড়ে।

পরে তাকে ধুনট উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় রবিবার দিবাগত রাতে তার মৃত্যু হয়। পরে তারা হত্যার ঘটনাটি ধামাপাচা দিতে সোমবার দুপুরে গোপনে আনার কলির লাশ দাফনের প্রস্তুতি নিচ্ছিল। এবিষয়ে ধুনট থানায় অবগত করলে পুলিশ তার লাশ উদ্ধার করে।

ধুনট থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) কৃপা সিন্ধু বালা বলেন, পান্তাভাত খাওয়ার পর আনার কলির অসুস্থ হয়ে পড়লে তাকে ধুনট হাসাপালে ভর্তি করে তার স্বামী। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়। এবিষয়ে আনারকলির ভাইয়ের অভিযোগের ভিত্তিতে তার লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য মর্গে প্রেরন করা হয়েছে। রিপোর্ট পেলে আসল ঘটনা জানা যাবে। এঘটনায় থানায় একটি ইউডি (অপমৃত্যু) মামলা দায়ের হয়েছে বলে জানান তিনি।

Happy
Happy
0 %
Sad
Sad
0 %
Excited
Excited
0 %
Sleepy
Sleepy
0 %
Angry
Angry
0 %
Surprise
Surprise
0 %
error: Content is protected !!